অবসরের ইঙ্গিত দিলেন রোনালদো!

3090
অবসরের ইঙ্গিত দিলেন রোনালদো!

কাতার বিশ্বকাপে কি রোনালদো খেলতে পারবেন? প্রশ্নটা রাশিয়া বিশ্বকাপ শেষ হওয়ার আগেই উঠছে। যদি খেলতে না পারেন তবে রোনালদো অবসর নেবেন কবে। আন্তর্জাতিক ফুটবলকে বিদায় বলবেন কবে, আর লিগ ক্যারিয়ারের ইতি টানবেন কবে? উত্তর রোনালদোও জানেন না। যতদিন ফুটবল উপভোগ করবেন ততদিন খেলবেন বলে উল্লেখ করেছেন পাঁচবারের ব্যালন ডি অর জেতা এই ফুটবলার। বলেন, আগামী মৌসুমেই ফুটবলকে বিদায় বলে দিতে পারেন। আবার ৪০ বছর বয়স পর্যন্তও খেলে যেতে পারেন।

বয়স হয়ে গেছে ৩৪। কিন্তু রোনালদোর ধার এখনও কমেনি। জুভেন্টাসে গেছেন চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ের চ্যালেঞ্জ নিয়ে। সর্বশেষ মৌসুমেও ইতালির রক্ষণাত্মক লিগে ৪৩ ম্যাচ খেলে ২৮ গোল করেছেন পর্তুগিজ যুবরাজ। অবসরের প্রশ্নে তাই তিনি টিভিআইকে বলেন, ’আমি এখনই অবসর নিয়ে ভাবছি না। হয়তো আগামী মৌসুমেই অবসরের কথা জানিয়ে দেব। আবার আমি ৪০-৪১ বছর বয়স পর্যন্তও খেলতে পারি।’

রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে চারটি চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতেছেন রোনালদো। ম্যানইউয়ের হয়ে জিতেছেন একটি। তিনটি প্রিমিয়ার লিগ জিতেছেন। লা লিগার শিরোপা উচিয়ে ধরেছেন দু’বার। প্রথম মৌসুমে ওল্ড লেডিদের হয়ে ইউরোপ সেরার পুরস্কার জিততে না পারলেও রোনালদো সিরি আ’ জিতেছেন। তিনি এসব মুহূর্ত উপভোগ করছেন বলে উল্লেখ করেন, ’সব সময় আমি যেটা বলি তা হলো, মুহূর্তটা আমি উপভোগ করছি। আমি এই উপভোগ্য মুহূর্তটা এগিয়ে নিতে চাই।’

রোনালদো এরই মধ্যে ইতিহাসের অন্যতম সেরা ফুটবলার হয়ে গেছেন। তিনি বেশ কিছু রেকর্ড নিজের করে নিয়েছেন। আরও রেকর্ড তিনি গড়তে চান জানিয়ে বলেন, ’আমরা থেকে বেশি রেকর্ড থাকা ফুটবলার কেউ আছেন? আমি মনে করি না আছে।’ রোনালদোর জুভেন্টাস সতীর্থ এবং রিয়াল মাদ্রিদে একসঙ্গে খেলা সামি খেদিরা বলেন, ’ক্রীড়াবিদদের জন্য রোনালদো উদাহরণ। তিনি বাস্কেটবলের জেমস লিব্রনের মতো কিংবা আমেরিকান ফুটবলার টম ব্রেডির মতো। বুফনও ওই কাতারে। তাদের মতো সিনিয়র খেলোয়াড়রা তরুণদের জন্য অনুপ্রেরণা।’