আওয়ামী লীগের অনেক নেতা নজরদারিতে

3090
আওয়ামী লীগের অনেক নেতা নজরদারিতে

শুধু ছাত্রলীগ বা যুবলীগের নেতারাই নজরদারিতে আছেন তা নয়, মূল দল আওয়ামী লীগের অনেক নেতাকেও নজরদারিতে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

অন্যায়, অপকর্ম, অনিয়ম-দুর্নীতির বিরুদ্ধে অ্যাকশনে সরকার ও আওয়ামী লীগের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল হচ্ছে বলে মনে করছেন কাদের। তিনি বলেছেন, উই আর হ্যাপি ইন অ্যাকশন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ছাত্রলীগ-যুবলীগের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ায় সরকারের জনপ্রিয়তা বেড়েছে। শেখ হাসিনার জনপ্রিয়তা বেড়ে গেছে।

শুক্রবার ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, দুর্নীতি ও অনিয়ম বিরুদ্ধে যে শুদ্ধি অভিযান চলছে- তা সারা দেশেই চলবে। যেখানেই দুর্নীতি-অনিয়ম হবে, শুধু যুবলীগ বা ছাত্রলীগের প্রশ্ন নয়; আওয়ামী লীগেরও যারা অনিয়ম দুর্নীতি করবে, তাদেরও একই পরিণতি ভোগ করতে হবে।

মন্ত্রী বলেন, যাদের কারণে দলের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ হয়েছে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। এর আগেও হয়েছে। এখনো হবে।

তিনি বলেন, অন্যায়-অনিয়ম ও দুর্নীতিতে প্রশাসন বা রাজনীতির কেউ যদি মদদ দিয়ে থাকেন, তাহলে তাদেরও আইনের আওতায় আনা হবে। কোনো গডফাদারই ছাড় পাবে না। আগামীতে যারা এসব অপকর্ম করবেন, তাদের জন্য এটি সতর্কবার্তা।

‘আওয়ামী লীগ মসজিদের শহরকে ক্যাসিনোর শহর বানিয়েছে’-বিএনপি নেতা মঈন খানের এমন বক্তব্যের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপিই ঢাকাকে ক্যাসিনোর শহর বানিয়েছে। বিএনপি যা পারেনি আওয়ামী লীগ তা করছে। এ কারণে বিএনপির গাত্রদাহ। বিএনপি যা পারেনি, তা শেখ হাসিনা করছেন।

‘শেখ মুজিব যেভাবে বিদায় হয়েছেন, শেখ হাসিনাও সেভাবে বিদায় হবেন’- বিএনপি নেতা শামসুজ্জামান দুদুর এ বক্তব্যের বিষয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, দুদুর এ বক্তব্যে আমরা শঙ্কিত নই। শেখ হাসিনা মৃত্যুকে ভয় পান না।