এই মডেলের সঙ্গে প্রেম করছেন ব্রাজিলের নতুন তারকা?

3091
এই মডেলের সঙ্গে প্রেম করছেন ব্রাজিলের নতুন তারকা?

ভিনিসিয়ুস জুনিয়রের মনমেজাজ খারাপ থাকার কথা। মাত্র ১৮ বছর বয়সে ব্রাজিল দলে ডাক পেয়েছিলেন। কিন্তু ক্লাবের ম্যাচে চোটে পড়ায় স্বপ্নের অভিষেকটা পিছিয়ে গেছে অন্তত তিন মাসের জন্য। শুধু কি তাই? ব্রাজিলের হয়ে প্রীতি ম্যাচ খেলতে না পারায় কোপা আমেরিকা দলে ঢোকাও প্রায় অসম্ভব হয়ে গেছে তাঁর জন্য।

কোচ তিতে নিজেই জানিয়েছেন সেটা। ক্লাবের হয়েও চোট কাটিয়ে মে মাসের আগে মাঠে নামার সুযোগ খুব কম। মনমেজাজ আসলেই ভালো থাকার উপায় নেই রিয়াল মাদ্রিদ উইঙ্গারের।

স্প্যানিশ পত্রিকা এএস অবশ্য জানাচ্ছে ভিন্ন কথা। শুধু ভালো নয়, বেশ ফুর্তিতেই আছেন ভিনিসিয়ুস। ইনস্টাগ্রাম মডেল মারিয়া জুলিয়া মাজালির সঙ্গে নাকি চুটিয়ে প্রেম করছেন ভিনি। সেটাও বোঝা গেছে দুজনের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের পোস্টে। দুজনেই স্নানঘরের আয়নায় ছবি তুলে নিজেদের অ্যাকাউন্টে পোস্ট করেছিলেন। দুজনের একক ছবি দেখে সাধারণ মানুষ হয়তো কিছু না–ও ভাবতে পারত। কিন্তু ব্রাজিলিয়ান পত্রিকা ল্যান্সকে সাধারণের পর্যায়ে রাখা বোকামি। ল্যান্স দুটি ছবিতেই আয়নার প্রতিবিম্বের মধ্যে সদৃশ খুঁজে পেয়ে দেখিয়েছে, দুজনের ছবি একই স্নানঘরে তোলা! আরও পরিষ্কার করে বললে, ভিনিসিয়ুস মাদ্রিদে যে বাসায় থাকেন সেটার!

মাজালি ব্রাজিলে এক রিয়্যালিটি টিভি শো দে ফারিয়াস কোম ও এক্সে (সাবেক ভালোবাসার সঙ্গে ছুটি কাটানো) অংশ নিয়ে বিখ্যাত হয়েছিলেন। ইনস্টাগ্রাম মডেল হিসেবে এখন বেশ জনপ্রিয় ২৩ বছর বয়সী মাজালি। ল্যান্সের দাবি, ভিনিসিয়ুস ও মাজালিকে এখন যুগল বলা যায়। ইনস্টাগ্রামে দুজন দুজনের ছবিতে ’লাইক’ দিচ্ছেন, মন্তব্য করছেন এবং একবার মাজালির একটি ছবিতে ’হৃদয়ের ইমোটিকন’ এঁকে দিয়েছিলেন ভিনি।

দুজনে যদিও আনুষ্ঠানিকভাবে এ সম্পর্কের কথা স্বীকার করেননি। গত ডিসেম্বরে এক সাক্ষাৎকারে বান্ধবী আছে কি না, এমন প্রশ্নে নেতিবাচক মন্তব্যই শুনিয়েছিলেন ভিনিসিয়ুস, ’না কেউ নেই। আমি জীবনের সেরা মুহূর্তে আছি।’ মিডিয়ার আলো থেকে সম্পর্ক বাঁচাতেই হয়তো এটা বলেছিলেন। কিন্তু ল্যান্সের প্রতিবেদনের পর সেটা করা খুব কঠিন হয়ে যাবে। মাজালিকে ইনস্টাগ্রামে প্রায় সাড়ে চার লাখ মানুষ অনুসরণ করে। তবে ভিনিসিয়ুসের সঙ্গে সম্পর্ক আছে, এমনটা প্রকাশ পেলে সংখ্যাটা বেড়ে যাবে বহুগুণ।

আয়াক্সের বিপক্ষে চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ ষোলোতে চোট পেয়েছেন ভিনিসিয়ুস। পুনর্বাসন প্রক্রিয়া থেকে দ্রুত ফিরতে পারলে এপ্রিলের শেষভাগে হয়তো অনুশীলনে ফিরতেও পারেন। এ মৌসুমে ২৮ বার মাঠে নেমে ৩ গোল করেছেন ভিনিসিয়ুস আর সতীর্থদের দিয়ে করিয়েছেন ১২ গোল।
এ দুটি ছবি দেখেই সন্দেহ করছেন সবাই। সংগৃহীত ছবি